শিরোনাম:
●   রাউজানে উৎপাদিত রাবার দেশের চাহিদা মিটিয়ে রপ্তানি হচ্ছে বিদেশে ●   আত্রাইয়ে গ্রাম পুলিশের মাঝে বাইসাইকেল বিতরণ ●   দীঘিনালায় ইউএনও’র হস্তক্ষেপে বাল্য বিয়ে বন্ধ ●   মোরেলগঞ্জে পুলের অভাবে শিক্ষার্থীরা ঝুঁকি নিয়ে পার হচ্ছে সাঁকো ●   নবীগঞ্জে বিশুদ্ধ খাবার পানির তীব্র সংকট দেখা দিয়েছে ●   এক মাস উনিশ দিন পর জয়পুরহাট থেকে কিশোরী উদ্ধার : অপহরণকারী গ্রেপ্তার ●   নিখোঁজের ৫ দিন পর পুকুর থেকে বৃদ্ধের লাশ উদ্ধার ●   আত্রাইয়ে গাঁজাসহ আটক-২ ●   কাপ্তাইয়ে একদিনে আরো ৪৪ জনের করোনা শনাক্ত ●   রুমা পর্যটন স্পট হিসেবে আনন্দঘন ও সুন্দর : রুমা - বান্দরবান সড়কটি আরও উন্নয়ন করা দরকার ●   গাজীপুর জেলা ক্রীড়া অফিসের আয়োজনে অটিজম ছেলে-মেয়েদের ক্রীড়া ●   মোরেলগঞ্জে যৌন হয়রানির অভিযোগে প্রধান শিক্ষক গ্রেফতার ●   বিশ্বনাথে ৫৪৩৮ শিক্ষার্থীকে করোনার ভ্যাকসিন প্রদান ●   রাঙামাটির কাউখালী থেকে দুই নাবালিকা অপহরণ : মাদারীপুরে উদ্বার আটক-১ ●   দাযরা জজ আদালতের স্থগিতাদেশ অমান্য করে সন্ত্রাসীর কায়দায় প্রতিপক্ষের বাগানের গাছ কর্তন ●   ঘোড়াঘাটে ২ নারীর লাশ উদ্ধার ●   ৬৯ এর গণ অভ্যুত্থানের বীর শহীদ আসাদের প্রতি বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টির শ্রদ্ধা জ্ঞাপন ●   যারা র‌্যাব তৈরি করেছিল, এখন তারাই আবার র‌্যাবকে অপছন্দ করছে : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ●   বিচারবহির্ভূত হত্যাকাণ্ড, গুম ও নির্যাতনের অভিযোগ তুলে জাতিসংঘের শান্তিরক্ষা মিশন থেকে র‌্যাবকে নিষিদ্ধের দাবি জানিয়েছে ১২টি আন্তর্জাতিক মানবাধিকার সংস্থা ●   ঈশ্বরগঞ্জে জমি সংক্রান্ত বিরোধে সংঘর্ষ আহত-৫ ●   ঝালকাঠিতে ভুয়া ডিবি আটক ●   মোরেলগঞ্জে কোভিড-১৯ প্রতিরোধে ধর্মীয় নেতৃবৃন্দের লিফলেট বিতরণ ●   চুয়েটে দুইদিনব্যাপী পদার্থ বিজ্ঞান বিভাগের ৪র্থ আন্তর্জাতিক কনফারেন্স শুরু হচ্ছে শনিবার ●   ময়মনসিংহ মেডিকেলের করোনা ইউনিটে করোনা ও উপসর্গে আরও ৩ জনের মৃত্যু ●   বিশ্বনাথে গাভীর খামার করে স্বাবলম্বী ফখরুল ●   গাবতলীতে জিয়াউর রহমানের ৮৬তম জন্মবার্ষিকী পালিত ●   কুষ্টিয়ায় অবৈধ ভাটা ভেঙে গুঁড়িয়ে দেওয়ার এক সপ্তাহের ব্যবধানে চালু ●   রাউজানে মাদকসহ আটক-৪ ●   আত্রাইয়ে বিষপানে গৃহবধূর আত্মহত্যা ●   ভারতের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ ও সেনাপ্রধান মনোজ এর বিরুদ্ধে লন্ডনে মামলা
রাঙামাটি, সোমবার, ২৪ জানুয়ারী ২০২২, ১১ মাঘ ১৪২৮



CHT Media24.com অবসান হোক বৈষম্যের
বৃহস্পতিবার ● ১ নভেম্বর ২০১৮
প্রথম পাতা » প্রধান সংবাদ » বার্ধক্য প্রতিরোধী গবেষণা সফল হলে মানুষ দেড়শো বছর পর্যন্ত বাঁচতে পারে
প্রথম পাতা » প্রধান সংবাদ » বার্ধক্য প্রতিরোধী গবেষণা সফল হলে মানুষ দেড়শো বছর পর্যন্ত বাঁচতে পারে
৬০৯ বার পঠিত
বৃহস্পতিবার ● ১ নভেম্বর ২০১৮
Decrease Font Size Increase Font Size Email this Article Print Friendly Version

বার্ধক্য প্রতিরোধী গবেষণা সফল হলে মানুষ দেড়শো বছর পর্যন্ত বাঁচতে পারে

---এক কাপ কফির দামেই যদি পাওয়া যায় এমন একটি পিল, প্রতিদিন যেটি খেয়ে ঠেকিয়ে দেয়া যাবে আপনার বার্ধক্য, তাহলে কেমন হয়? এরকম একটি ঔষধ বা অমরত্ব-সুধা আবিস্কারের চেষ্টা চলছে বহু শত বছর ধরে। কিন্তু হার্ভার্ড মেডিক্যাল স্কুলের এক সাম্প্রতিক গবেষণা যদি সফল হয়, তাহলে সেই স্বপ্ন খুব শীঘ্রই বাস্তবে রূপ নিতে পারে।

গবেষকরা দাবি করছেন, এই বার্ধক্য প্রতিরোধী গবেষণা সফল হলে মানুষ দেড়শো বছর পর্যন্ত বাঁচতে পারে। শরীরের বুড়িয়ে যাওয়া অঙ্গ-প্রত্যঙ্গের সেল বা কোষ ব্যবহার করে একেবারে নতুন অঙ্গ-প্রত্যঙ্গও তৈরি করা যাবে। আর ২০২০ সালের মধ্যেই হয়তো এই চিকিৎসা মানুষের ওপর প্রয়োগ করা যাবে।

হার্ভার্ড মেডিক্যাল স্কুলের এই যুগান্তকারী গবেষণায় নেতৃত্ব দিচ্ছেন ড: ডেভিড সিনক্লেয়ার। ইঁদুরের ওপর পরীক্ষা চালিয়ে তারা এর মধ্যে সফল হয়েছেন। এখন চেষ্টা চলছে, বার্ধক্য প্রতিরোধী এই চিকিৎসা মানবদেহে প্রয়োগ করা যায় কীনা।

হার্ভার্ড মেডিক্যাল স্কুল গত মার্চে তাদের সাইটে প্রথম এই গবেষণার কথা প্রকাশ করে। গবেষক দলের প্রধান ড: ডেভিড সিনক্লেয়ার সেখানে নিজেই ব্যাখ্যা করেছেন কিভাবে এই বার্ধক্য ঠেকানোর চিকিৎসায় তারা সাফল্য দেখতে পাচ্ছেন।
পেশিতে রক্ত নিয়ে যায় যে রক্তনালী, সেগুলোর শুকিয়ে যাওয়া বন্ধ করতে পারলে ঠেকিয়ে দেয়া যাবে বার্ধক্য

“আমাদের বয়স যখন বাড়ে, তখন আমাদের শরীরের ভেতর যেসব ছোট ছোট রক্তনালী আছে, সেগুলো বুড়িয়ে যেতে থাকে এবং এ পর্যায়ে একদম শুকিয়ে যায়। ফলে বিভিন্ন অঙ্গ-প্রত্যঙ্গে এবং পেশিকলায় রক্ত প্রবাহ অনেক কমে যায়। মানুষের শরীরের অনেক রোগ-ব্যাধির মূল কারণ কিন্তু এই রক্তনালীর বার্ধক্য”, বলছেন তিনি। বিশেষ করে বহু ধরণের হৃদরোগ, স্নায়বিক রোগ এটা থেকেই হয়।

কিন্তু হার্ভার্ড মেডিক্যাল স্কুলের গবেষক দল ইঁদুরের ওপর গবেষণা চালিয়ে তাদের মধ্যে এই রক্তনালীর বুড়িয়ে যাওয়া প্রতিরোধ শুধু নয়, সেটিকে ঘুরিয়ে দিতেও সক্ষম হয়েছেন। এই সাফল্যের মানে হচ্ছে, মানুষের অনেক ধরণের রোগ-ব্যাধির নিরাময় এখন সময়ের ব্যাপার মাত্র।

এই গবেষণার একেবারে কেন্দ্রে আছে রক্তনালী এবং মাংসপেশির সম্পর্ক। মানুষের রক্তনালীর ভেতরের দেয়ালে আছে এনডোথেলিয়াল সেল বা কোষের আস্তরণ। রক্তনালীকে সজীব রাখতে এটি খুবই গুরুত্বপূর্ণ। এই এনডোথেলিয়াল সেলের বয়স যত বাড়তে থাকে, মানুষের শরীরের রক্তনালী শুকিয়ে যেতে থাকে এবং এক পর্যায়ে একদম মরে যায়। ফলে শরীরের অনেক অংশেই রক্তপ্রবাহ কমে যায়। এর মানে হচ্ছে আমাদের শরীরের বিভিন্ন প্রত্যঙ্গ এবং পেশির কার্যক্ষমতা কমে যায়।

আরও পড়ুন:

সুস্বাস্থ্যের জন্য দিনে কতটা ঘুম দরকার

বাংলাদেশে কীভাবে বেড়েছে গড় আয়ু?

প্রতিদিন অতিরিক্ত মদ্যপান করলে কমতে পারে আয়ু

মানুষ যখন নিয়মিত শরীর চর্চা বা ব্যায়াম করে, তখন এই প্রক্রিয়া কিছুটা থমকে দেয়া যায়। কিন্তু সেটার একটা সীমা আছে। একটা বয়সের পর শরীর চর্চা করেও আর লাভ হয় না। রক্তনালীর মৃত্যু ঠেকানো যায় না।
বয়স ঠেকিয়ে দেয়ার ঔষধ কি শীঘ্রই মানুষের হাতের নাগালে চলে আসবে?

“আমরা এই রক্তনালীর বুড়িয়ে যাওয়ার রহস্য আসলে উদঘাটন করেছি এই গবেষণায়”, বলছেন ড: ডেভিড সিনক্লেয়ার।

এনএডি নামের একটি মলিকিউল এবং সার্ট-ওয়ান নামের একটি প্রোটিন মূলত এক্ষেত্রে মূল ভূমিকা পালন করে। রক্তনালীতে এই এনএডির মূল কাজ হচ্ছে সার্ট-ওয়ান এর উপস্থিতি বাড়ানো। আর সার্ট-ওয়ান রক্তনালী এবং পেশীকলার মধ্যে সংযোগ ঘটায়। কিন্তু বয়স যত বাড়ে, রক্তনালীর মধ্যে এই এনএডি এবং সার্ট-ওয়ান, দুটিই কমতে থাকে। ফলে রক্তনালী এবং মাংসপেশির মধ্যে যোগাযোগও কমতে থাকে।

ড: সিনক্লেয়ার এবং তাঁর সহকর্মীরা ইঁদুরের ওপর যে গবেষণা চালিয়েছেন, সেখানে তারা এনএমএন নামের একটি রাসায়নিক যৌগ প্রয়োগ করেন ইঁদুরের দেহে। এই এনএমএন ইঁদুরের রক্তনালীতে এনএডি’র মাত্রা বাড়ায়। এর পরিণামে সার্ট-ওয়ান নামের প্রোটিনের পরিমাণও বৃদ্ধি পায়। ফলে ইঁদুরের রক্তনালীর এনডোফেলিয়াল সেলগুলো খুবই কর্মক্ষম থাকে। যা পেশিতে রক্তপ্রবাহ বাড়াতে সাহায্য করে।

যেসব বয়স্ক ইঁদুরের ওপর এই গবেষণা চালানো হয়, তাদের ক্ষেত্রে নাটকীয় সাফল্য পেয়েছেন গবেষকরা। তাদের শারীরিক সক্ষমতা ৮০ শতাংশ বেড়ে গেছে।

ড: সিনক্লেয়ার বলছেন, যারা এখন বার্ধক্যের কারণে আর শরীরচর্চা করতে পারেন না, বা চলাফেরা করতে পারেন না, তাদের জন্য এই গবেষণা এক বিরাট পরিবর্তন নিয়ে আসতে পারে।

বিজ্ঞানীরা বলছেন, রক্তনালীর ভেতরে রক্ত চলাচল বাড়ানোর জন্য নতুন ধরনের ঔষধ আবিস্কার সম্ভব হবে এই গবেষণার ভিত্তিতে।





google.com, pub-4074757625375942, DIRECT, f08c47fec0942fa0

প্রধান সংবাদ এর আরও খবর

রুমা পর্যটন স্পট হিসেবে আনন্দঘন ও সুন্দর : রুমা - বান্দরবান সড়কটি আরও উন্নয়ন করা দরকার রুমা পর্যটন স্পট হিসেবে আনন্দঘন ও সুন্দর : রুমা - বান্দরবান সড়কটি আরও উন্নয়ন করা দরকার
যারা র‌্যাব তৈরি করেছিল, এখন তারাই আবার র‌্যাবকে অপছন্দ করছে : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী যারা র‌্যাব তৈরি করেছিল, এখন তারাই আবার র‌্যাবকে অপছন্দ করছে : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী
চুয়েটে দুইদিনব্যাপী পদার্থ বিজ্ঞান বিভাগের ৪র্থ আন্তর্জাতিক কনফারেন্স শুরু হচ্ছে শনিবার চুয়েটে দুইদিনব্যাপী পদার্থ বিজ্ঞান বিভাগের ৪র্থ আন্তর্জাতিক কনফারেন্স শুরু হচ্ছে শনিবার
কুষ্টিয়ায় অবৈধ ভাটা ভেঙে গুঁড়িয়ে দেওয়ার এক সপ্তাহের ব্যবধানে চালু কুষ্টিয়ায় অবৈধ ভাটা ভেঙে গুঁড়িয়ে দেওয়ার এক সপ্তাহের ব্যবধানে চালু
ভারতের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ ও সেনাপ্রধান মনোজ এর বিরুদ্ধে লন্ডনে মামলা ভারতের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ ও সেনাপ্রধান মনোজ এর বিরুদ্ধে লন্ডনে মামলা
খাগড়াছড়ির গুইমারায় ট্রাক নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে পিতা-পুত্র নিহত খাগড়াছড়ির গুইমারায় ট্রাক নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে পিতা-পুত্র নিহত
রাউজানে ৮ ফুট লম্বা অজগর উদ্ধার রাউজানে ৮ ফুট লম্বা অজগর উদ্ধার
পুলিশের তালিকায় মোষ্ট ওয়ান্টেড ইউপিডিএফ কেন্দ্রীয় নেতা জ্ঞানময় অস্ত্রসহ আটক পুলিশের তালিকায় মোষ্ট ওয়ান্টেড ইউপিডিএফ কেন্দ্রীয় নেতা জ্ঞানময় অস্ত্রসহ আটক
আত্রাইয়ে তীব্র শীতে বিপর্যস্ত শ্রমজীবী মানুষ আত্রাইয়ে তীব্র শীতে বিপর্যস্ত শ্রমজীবী মানুষ
শৈত্য প্রবাহ আর কনকনে শীতে ঝিনাইদহের ফুটপাত মার্কেটে বাড়ছে ভিড় শৈত্য প্রবাহ আর কনকনে শীতে ঝিনাইদহের ফুটপাত মার্কেটে বাড়ছে ভিড়

আর্কাইভ

পাঠকের মন্তব্য

(মতামতের জন্যে সম্পাদক দায়ী নয়।)