শিরোনাম:
●   প্রকৃতিকে রাঙিয়ে তোলা বসন্তের রুপকন্যা শিমুল বিলুপ্তপ্রায় ●   বিশ্ব ঐতিহ্য ষাটগম্বুজ মসজিদ ২৮ বিদেশী পর্যটক ঘুরে দেখলেন ●   ঈশ্বরগঞ্জে প্রাণনাশের হুমকির প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন ●   লামায় ৮ কোটি ৭০ লক্ষ টাকার উন্নয়ন প্রকল্পের উদ্বোধন ●   ঝালকাঠি সাংবাদিক ক্লাবের আজীবন সদস্য হলেন বাবু ●   আক্কেলপুরে অযত্ন আর অবহেলায় কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার ●   মিরসরাইয়ে দূরন্ত সংঘের কমিটি গঠিত ●   রাজনীতিতে টাকা নয়, বই বা জ্ঞানচর্চা প্রয়োজন : মোমিন মেহেদী ●   মোরেলগঞ্জে পর্নোগ্রাফি মামলায় ব্যবসায়ী গ্রেফতার ●   ১১ ফেব্রুয়ারী যুগপৎ আন্দোলনে গণতন্ত্র মঞ্চের পদযাত্রার কর্মসূচী সফল করার আহবান ●   নবীগঞ্জে বীর মুক্তিযোদ্ধা গোপেশ দাশের পরলোকগমন ●   প্রথম বাউসী প্রবাসী ফুটবল টুর্নামেন্টের উদ্বোধন ●   ছয়টি উপনির্বাচনেও আরও একবার নির্বাচনী ব্যবস্থার প্রতি গণ হতাশার প্রকাশ ঘটেছে ●   চুয়েটে আন্তঃহল ভলিবল প্রতিযোগিতা সম্পন্ন ●   বিশ্বনাথে ঋণ খেলাপি মামলায় ব্যবসায়ী গ্রেফতার ●   জাতীয় নিরাপদ খাদ্য দিবসে ভার্চুয়াল মানববন্ধন ●   চিকিৎসকদের সততা ও নিষ্ঠার সাথে রোগীদের সেবা দেওয়ার আহ্বান ●   পানছড়িতে উন্নত রাষ্ট্র গঠনের লক্ষ্যে মহিলা সমাবেশ ●   কাপ্তাই লেকের অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদের কার্যক্রম অভিযান বন্ধ ●   চসিকের প্রকল্প পরিচালককে মারধরের ঘটনায় চুয়েট শিক্ষক সমিতির নিন্দা ●   মিরসরাইয়ে ট্রাক চাপায় চালকের সহকারী নিহত ●   ঈশ্বরগঞ্জে গার্লস স্কুল এন্ড কলেজে বরণ অনুষ্ঠান ●   নবীগঞ্জে অবৈধভাবে মাটি কাটার দায়ে লাখ টাকা জরিমানা ●   কিছু মেগা প্রকল্প বাতিল করে গ্যাস,বিদ্যুৎ ও জ্বালানিখাতে ভর্তুকী বৃদ্ধি করুন ●   বড়তাকিয়া যাহেদিয়া নূরানী কিন্ডারগার্টেনে সবক প্রদান অনুষ্ঠান ●   হিরো আলমকে সমর্থন নতুনধারার ●   দৈনিক গণমুক্তির ৫০তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালিত ●   খাগড়াছড়িতে ভিক্ষুক পুনর্বাসন ও বিকল্প কর্মসংস্থানের উদ্বোধন ●   রাঙামাটিতে ভিসিএফ নেটওয়ার্ক সেন্ট্রাল কমিটির শপথ গ্রহণ ●   আজকের ছাত্রছাত্রীরা স্মার্ট বাংলাদেশের কারিগর :পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রী
রাঙামাটি, সোমবার, ৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ২৪ মাঘ ১৪২৯



CHT Media24.com অবসান হোক বৈষম্যের
মঙ্গলবার ● ২০ সেপ্টেম্বর ২০২২
প্রথম পাতা » আন্তর্জাতিক » সাফ চ্যাম্পিয়নশিপ জয় করে আসা ময়মনসিংহের ৬ ফুটবল কন্যাদের জয়গান
প্রথম পাতা » আন্তর্জাতিক » সাফ চ্যাম্পিয়নশিপ জয় করে আসা ময়মনসিংহের ৬ ফুটবল কন্যাদের জয়গান
৬৮৮ বার পঠিত
মঙ্গলবার ● ২০ সেপ্টেম্বর ২০২২
Decrease Font Size Increase Font Size Email this Article Print Friendly Version

সাফ চ্যাম্পিয়নশিপ জয় করে আসা ময়মনসিংহের ৬ ফুটবল কন্যাদের জয়গান

ছবি : সংবাদ সংক্রান্তময়মনসিংহ প্রতিনিধি :: প্রথম বারের মতো সাফ চ্যাম্পিয়নশিপ খেলা শেষে ময়মনসিংহের সিমান্ত ঘেষা প্রত্যন্ত পাহাড়ী জনপদ য়েখানে বাস যোগেও প্রায় দুই-আড়াই ঘন্টার পথ সেই ধোবাউড়া উপজেলায় যেন হোলিখেলা শুরু হয়েছে এমনটাই মনে হচ্ছে। শুধু এখানেই শেষ নয় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইসবুকে মাত্র কয়েক মিনিটের ব্যাবধানে মনে হচ্ছে যেন ফেইসবুকটা কিনেই ফেলছে ধোবাউড়া উপজেলার কলসিন্দুরের মেয়েরা।

আর তা হবেইনা কেন, হওয়াটাই সাভাবিক কেননা ফইনাল খেলায় ধোবাউড়া উপজেলার কলসিন্দুর গ্রামের ৬ জন খেলোয়াড় রয়েছে। সানজিদা, মারিয়া মান্দা, শিউলি আজিম, মারজিয়া আক্তার, শামসুন্নাহার সিনিয়র, শামসুন্নাহার জুনিয়র। এছাড়াও এর আগের খেলায় সাজেদা, তহুরাও খেলেছে।

আজ থেকে প্রায় ১১ বছর আগে ২০১১ সালে বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন্নেছা মুজিব ফুটবল টুর্নামেন্ট দিয়ে অপ্রতিরোধ্য এই ফুটবল কন্যাদের শুরু।ময়মনসিংহ জেলার সীমান্তবর্তী এলাকার গারো পাহাড়ের পাদদেশ থেকে ধোবাউড়া উপজেলার কলসিন্দুরসহ আশপাশের কয়েকটি গ্রাম থেকে উঠে আসা এই একদল কিশোরী ফুটবলারের পায়ের যাদুতে ধুঁকতে ফুটবল, বিশেষ করে নারী ফুটবল ফিরে পায় চাঁদের আলো।

প্রথমে যদিও এলাকার কিছু কিছু মানুষ তাদেরকে ভিন্ন চোখে দেখতো, এখন আর সে অবস্থা নেই। ভিন্ন চোখে দেখার কিছু যৌক্তিকতাও ছিলো তাদের কাছে, কেননা যে মেয়েরা ঘরের কাজ-কাম দেয়ার কথা তারাই ছেলেদের খেলা ফুটবল খেলছে। এই চিন্তা করে অনেক অভিভাবকতো নিজের মেয়েকে খেলতে নিষেধও করে দিয়েছেন।

কিন্তু হাঁটি হাঁটি পাপা করে সফলতা আসছে তা দেখে সকলের মনেই পরিবর্তন আসতে শুরু করে। সকলেই তাদের প্রশংসায় পঞ্চমুখ হয়ে হলে তারি ধারাবাহিকতায় আজকের জয় শুধু কলসিন্দুর নয়, উপজেলার প্রতিটি অঞ্চলে, সারা বাংলাদেশে, সাফ অঞ্চলে।

নারী ফুটবলারদের সকলের মধ্যে অন্যতম আলোচিত নাম সানজিদা আক্তার। তার সাথে আরো ৬জনের আলোয় উজ্জ্বল হয়ে উঠেছে ময়মনসিংহের কলসিন্দুর গ্রাম, সেইসঙ্গে গোটা বাংলাদেশও। এজন্য কলসিন্দুর গ্রামে বইছে আনন্দের বন্যা।

দীর্ঘদিন ধরে বাংলাদেশে নারী ফুটবলে প্রতিনিধিত্ব করতে থাকা ধোবাউড়া উপজেলার কলসিন্দুর থেকে উঠে আসা একদল কিশোরী ফুটবলার। লাল সবুজের পতাকাকে বিশ্বের বুকে তুলে ধরে রাখা কলসিন্দুর গ্রামের নারী ফুটবল দলের কোনও খেলা থাকলে আগ্রহ নিয়ে ওই গ্রামের ফুটবলভক্ত ও সমর্থকরা টিভির সামনে বসে থাকেন।

ফাইনাল খেলা সম্পর্কে কলসিন্দুর গ্রামের আব্দুল কদ্দুস নামের একজন বলেন, ‘আমরা অনেক খুশি, আমরার মাইয়ারা বাংলাদেশেরে জিতাইছে। আমি ফুরা খেলা দেখছি, আমরার শামসুন্নাহার জুনিয়র মাঠে নাইম্মা পাঁচ মিনিটের মধ্যেই গোল দে এটি আমার অন্তররডা জুরড়ায়া দিসে।’

সাফ জয়ে উচ্ছ্বসিত ফুটবল তারকা সানজিদা আক্তারের বাবা লিয়াকত আলী এই জয়ের প্রতিক্রিয়া জানতে গিয়ে কেঁদে ফেলেন। তিনি বলেন, ‘আমার আনন্দের শেষ নেই আজ। বাবা হিসেবে আমি গর্বিত। দেশের মুখ উজ্জ্বল করেছে মেয়েগুলো। এই আনন্দ প্রকাশের ভাষা জানা নেই।’

একই গ্রামের ফুটবল তারকা শামসুন্নাহার জুনিয়রের বাবা বাবা নেকবর আলী বলেন, ‘সকাল থেকেই আমরা পরিবারের সদস্যসহ কলসিন্দুরের ফুটবল ভক্তরা শামসুন্নাহার জুনিয়রসহ সব খেলোয়াড়ের জন্য দোয়া করেছি। যোগ্যতার প্রমাণ রেখে বাংলাদেশের মেয়েরা সাফ ফুটবলে চ্যাম্পিয়ন হয়েছে। এই জয়ে এলকার সকলেই আনন্দিত।’

একই গ্রামের মারিয়া মান্ডার মা এনোতা মান্ডা বলেন, ‘চ্যাম্পিয়ন হয়ে মেয়েগুলো বাংলাদেশের মুখ উজ্জ্বল করেছে। ভবিষ্যতে মারিয়াসহ ফুটবল দলের এসব খেলোয়াড় আরও বড়জয় বাংলাদেশের জন্য এনে দেবে-এটাই প্রত্যাশা।’

এসব ফুটবল তারকার যার হাত ধরে উঠে এসেছেন তাদের স্থানীয় কোচ জুয়েল মিয়া বলেন, ‘কলসিন্দুরের অগ্রযাত্রাকে ধরে রাখতে ক্ষুদে ফুটবলারদের নিয়মিত অনুশীলন চলছে। আজকের এই জয় নতুন প্রজন্মের খেলোয়ারদের আরো উৎসাহ জোগাবে।’

জয়ে উচ্ছ্বসিত কলসিন্দুর স্কুল এন্ড কলেজের সহকারী অধ্যাপক ও কলসিন্দুর নারী ফুটবল টিমের টিম ম্যানেজার মালা রাণী সরকার বলেন, আজকে জয়ে আমরা অনেক অনেক আনন্দিত, এই জয় আমাদের মেয়ে এবং ছেলেদের জন্য আগামী দিন বিশ্ব জয়ের জন্য অনুপ্রেরণা যোগাবে।

মালা রানী সরকার আরও বলেন,‘কত বাধা পেরিয়ে আজ তারা চ্যাম্পিয়নশিপ শিরোপা জয় করেছেন। এক কথায় পাহাড় সমান বাধা পেরিয়ে ‘সানজিদা আক্তার, মারিয়া মান্দা, শিউলি আজিম, তহুরা খাতুন, শামসুন্নহার সিনিয়র, শামসুন্নাহার জুনিয়র, সাজেদা খাতুন ও মার্জিয়া আক্তার এই অজপাড়া গ্রাঁ কলসিন্দর থেকে হাটি হাটি পায়ে চলতে চলতে শেষে সাফ জয় করেছেন। এই ফুটবল কন্যাদের তৈরি করতে অনেক বাধার সম্মুখীন হতে হয়েছে। ২০১১ সালে প্রাথমিক বিদ্যালয় থেকে প্রথম বারের মতো বঙ্গমাতা ফজিলাতুন্নেছা মুজিব টুর্নামেন্টে চ্যাম্পিয়ন হওয়ার মাধ্যমে তারা আলোচনায় আসার পর আরও তিন বার চ্যাম্পিয়নের ধারা অব্যাহত রাখে।’

তিনি আরও বলেন,‘এই অজপাড়া গাঁ কলসিন্দুরের এই মেয়েদের ফুটবল খেলাকে অনেকে ভালো চোখে দেখেনি। এমনকি পরিবার থেকেও তেমন একটা সহায়তা পাওয়া যায়নি। বিশেষ করে প্রাইমারি স্কুলের গন্ডি পেরিয়ে মাধ্যমিকে মেয়েরা ভর্তি হওয়ার পর থেকে ফুটবল খেলাকে কেন্দ্র করে বড় ধরনের বাধা আসে। বিশেষ করে বয়ঃসন্ধিকালে মেয়েদের মধ্যে শারীরিক নানা পরিবর্তন দেখা দেয়ার পর থেকেই তাদের ফুটবল খেলা নিয়ে পরিবারের সদস্যরা এবং সেইসাথে স্থানীয় লোকজন ভিন্ন চোখে দেখতে শুরু করে।’

তিনি বলেন, ফুটবল খেলতে গিয়ে নানা ধরনের কটূক্তিও শুনতে হয়েছে কলসিন্দুরের মেয়েদের। স্থানীয়রা মেয়েদের ফুটবল খেলায় উৎসাহ দেওয়ার পরিবর্তে বাধা দিয়ে বলতো, ফুটবল খেললে মেয়েদের বিয়ে দেওয়া যাবে না। এ ছাড়াও নানা ধরনের কটূক্তিও করতো। এ সময় স্থানীয় শিক্ষক এবং সমাজ সচেতন মানুষদের সহায়তায় খেলোয়ড়দের পরিবার ও স্থানীয়দের বোঝানোর চেষ্টা করা হয়।

মালা রানী আরও বলেন, ‘সাফ চ্যাম্পিয়নের প্রথম পাঁচ মিনিটে গোল করে দলকে এগিয়ে নেয়া শামসুন্নাহার জুনিয়র ছোটবেলায় মাকে হারায়। গরিব-অসহায় পরিবারে তাকে যতœ করার কেউ ছিল না। কিন্তু ফুটবল খেলার প্রতি ব্যাপক আগ্রহ দেখে আমি এক বছর তার খাওয়া-দাওয়ার দায়িত্ব নেই। এভাবে নানা বাধা-বিপত্তি পেরিয়ে আসার পথে প্রায় প্রতিটি মেয়ে জাতীয় দলে জায়গা করে নেয়ার পর হঠাৎ করে ফুটবল কন্যা সাবিনার মৃত্যু হলে মানসিকভাবে ভেঙে পড়ে কলসিন্দুরের মেয়েরা। সবাই সিদ্ধান্ত নেয়,তারা আর ফুটবল খেলবে না। এরপর তাদের বোঝানো হয় এবং দেশের কথা মাথায় রেখে আবারো ফুটবল খেলায় মনোনিবেশে আগ্রহী করে তোলা হয়। এভাবেই আজকের ফুটবল কন্যারা তৈরি হয়েছে এবং দক্ষিণ এশিয়ার সেরা ফুটবলারের মুকুট ছিনিয়ে এনেছে।’

তিনি আরও বরেন,‘এক কথায় জাতীয় নারী ফুটবল দলে কলসিন্দুরের বেশিরভাগ মেয়েরা খেলছে এটা আমাদের জন্য অত্যন্ত গর্বের। আশা করি, আগামী দিনে দেশের হয়ে আরও ভালো খেলবে তারা, এটাই আমাদের প্রত্যাশা।’ পাশাপাশি তিনি বলেন আমরা আগামীর জন্য খেলোয়াড় তৈয়ার করার ক্ষেত্রে ছেলে এবং মেয়ে দু’টি ফর্মেটেই চেষ্টা অব্যাহত রেখেছি। কিছুদিন আগে আমাদের কলসিন্দুর ছোট টিমের মেয়ে এবং ছেলেরা জাতীয় গ্রীষ্মকালীন ক্রিড়া প্রতিযোগিতা (স্কুল এবং মাদ্রাসা) ২০২২ দু’টি ফর্মেটেই জেলা পর্যায়ে চ্যাম্পিয়নের গৌরব অর্জন করেছে।





google.com, pub-4074757625375942, DIRECT, f08c47fec0942fa0

আন্তর্জাতিক এর আরও খবর

সমমর্যাদার ভিত্তিতে ভারত - বাংলাদেশ দ্বিপাক্ষিক সমস্যার সমাধান করতে হবে : কার্তিক পাল সমমর্যাদার ভিত্তিতে ভারত - বাংলাদেশ দ্বিপাক্ষিক সমস্যার সমাধান করতে হবে : কার্তিক পাল
মরক্কো-কে ২-০ গোলে হারিয়ে বিশ্বকাপ ফাইনালে ফ্রান্স মরক্কো-কে ২-০ গোলে হারিয়ে বিশ্বকাপ ফাইনালে ফ্রান্স
বিশ্বকাপের উদ্বোধনী ম্যাচে কাতারকে হারালো ইকুয়েডর বিশ্বকাপের উদ্বোধনী ম্যাচে কাতারকে হারালো ইকুয়েডর
সংবর্ধিত ও পুরস্কৃত হলেন কলসিন্দুরের ৮ ফুটবল কন্যা সংবর্ধিত ও পুরস্কৃত হলেন কলসিন্দুরের ৮ ফুটবল কন্যা
ওমানে নারী ক্রিকেট দলের অধিনায়ক রাউজানের হেয়াম ওমানে নারী ক্রিকেট দলের অধিনায়ক রাউজানের হেয়াম
সাফ নারী ফুটবল খেলায় বাংলাদেশ নারী ফুটবল দলের সাফল্যে পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রীর অভিনন্দন সাফ নারী ফুটবল খেলায় বাংলাদেশ নারী ফুটবল দলের সাফল্যে পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রীর অভিনন্দন
রাণী দ্বিতীয় এলিজাবেথের মৃত্যুতে অহিদ উদ্দিনের শোক রাণী দ্বিতীয় এলিজাবেথের মৃত্যুতে অহিদ উদ্দিনের শোক
ভারতের নতুন রাষ্ট্রপতি দ্রৌপদী মুর্মু ভারতের নতুন রাষ্ট্রপতি দ্রৌপদী মুর্মু
এপাড়-ওপাড় বাংলার শিক্ষার্থীদের এক মিলনক্ষেত্র রবীন্দ্রভারতী বিশ্ববিদ্যালয় এপাড়-ওপাড় বাংলার শিক্ষার্থীদের এক মিলনক্ষেত্র রবীন্দ্রভারতী বিশ্ববিদ্যালয়

আর্কাইভ

পাঠকের মন্তব্য

(মতামতের জন্যে সম্পাদক দায়ী নয়।)